বুধবার, ১৫ আষাঢ় ১৪২৯
২৯ জুন ২০২২ ঢাকা, বাংলাদেশ
যুক্ত থাকুন

আর্কাইভ
সর্বশেষ

প্রতি ৩০ ঘণ্টায় বিশ্বে একজন শতকোটিপতি

উইমেনআই ডেস্ক: 
বিশ্বব্যাপী করোনা মহামারির মধ্যেও প্রতি ৩০ ঘণ্টায় নতুন করে একজন শতকোটিপতি বা বিলিয়নিয়ার হয়েছেন। সুইজারল্যান্ডের দাভোসে বিশ্ব অর্থনৈতিক ফোরামের বার্ষিক সম্মেলন শুরুর প্রেক্ষাপটে আন্তর্জাতিক দাতব্য সংস্থা অক্সফাম এ তথ্য জানায়।

রোববার (২২ মে) থেকে শুরু হয়েছে এ সম্মেলন, যা চলবে আগামী ২৬ মে পর্যন্ত। এ সম্মেলনে জড়ো হচ্ছেন দাভোসে অংশ নিতে বিশ্বের প্রভাবশালী রাজনীতিবিদ, ব্যবসায়ী, কোটিপতি ও বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানের প্রধান নির্বাহীরা।

সোমবার অক্সফাম জানায়, করোনা একদিকে যেমন নতুন শতকোটিপতি তৈরি করেছে, অন্যদিকে এই মহামারি বহু মানুষকে দারিদ্র্যসীমার নিচে ঠেলে দিয়েছে।

অক্সফামের ধারণা, চলতি বছর নতুন করে বিশ্বের ২৬ কোটি ৩০ লাখ মানুষ চরম দারিদ্র্যসীমার নিচে চলে যাবে। পরিস্থিতি যদি এমন হয়, তাহলে প্রতি ৩৩ ঘণ্টায় ১০ লাখ মানুষ চরম দরিদ্র হবে।

করোনা মহামারির কারণে বিশ্বজুড়ে মূল্যস্ফীতি বাড়ছে। সেইসঙ্গে পাল্লা দিয়ে বাড়ছে জীবনযাত্রার ব্যয়। এ সংকটের কথা উল্লেখ করে অক্সফাম বিপরীত চিত্রও তুলে ধরেছে।

অক্সফাম বলছে, করোনা মহামারিকালে বিশ্বে নতুন করে ৫৭৩ জন ব্যক্তি শতকোটিপতি বা বিলিয়নিয়ার হয়েছেন। এ তথ্যের ভিত্তিতে হিসেব করলে দেখা যায়, প্রতি ৩০ ঘণ্টায় শতকোটিপতি হয়েছেন একজন।

অক্সফামের নির্বাহী পরিচালক গ্যাব্রিয়েলা বুচার এক বিবৃতি দিয়ে বলেছেন, শতকোটিপতিরা তাদের ভাগ্যের অবিশ্বাস্য উন্নতি উদ্যাপন করতে দাভোসে আসছেন। সহজ ভাষায় বলতে গেলে, করোনা মহামারি ও বর্তমানে খাদ্য-জ্বালানির অত্যধিক মূল্যবৃদ্ধি তাদের জন্য আশীর্বাদ হয়েছে।

তিনি বরেন, অন্যদিকে, কয়েক দশকে চরম দরিদ্র দূরীকরণে যে অগ্রগতি হয়েছে, তার গতি এখন বিপরীতমুখী। বিশ্বের বিপুলসংখ্যক মানুষ অসহনীয় মূল্যবৃদ্ধির মুখে পড়েছে। টিকে থাকার জন্য তাদের লড়তে হচ্ছে।

মহামারির সুবাদে যারা শতকোটিপতি হয়েছেন, অক্সফাম তাদের ওপর ‘সংহতি কর’ আরোপের আহ্বান জানিয়েছে। সংস্থাটি বলছে, নিত্যপণ্যের মূল্যবৃদ্ধির শিকার লোকজনকে সহায়তার জন্য এ কর আরোপ করা উচিত। পাশাপাশি মহামারি থেকে টেকসই পুনরুদ্ধার তহবিলেও এ কর কাজে লাগানো যাবে।

আন্তর্জাতিক দাতব্য সংস্থাটি বলছে, সংকটকে কাজে লাগিয়ে মুনাফা করার প্রবণতা বন্ধের এখনই সময়। বড় করপোরেশনগুলোর এমন মুনাফার ওপর অস্থায়ী ভিত্তিতে অতিরিক্ত কর চালু করার পক্ষে মত দিয়েছে সংস্থাটি।

বিশ্বের তথাকথিত অভিজাত শ্রেণি ১৯৯৫ সাল থেকে দাভোসে এ সম্মেলন করে আসছে। তবে করোনা মহামারির কারণে দুই বছর এ সম্মেলন হয়নি। দাভোস সম্মেলন উপলক্ষে বৈশ্বিক অর্থনৈতিক অসমতা নিয়ে নিয়মিত এমন তথ্য তুলে ধরে অক্সফাম।

উইমেনআই২৪ ডটকম//এল  

 

Mujib Borsho

সর্বশেষ

শীর্ষ সংবাদ:
প্রেমিকাকে নিয়ে উধাও ছেলে, মাকে পুড়িয়ে হত্যা!         ঢাকাগামী ৭ ট্রেন বিমানবন্দর স্টেশনে থামবে না চার দিন         মহানবিকে কটূক্তি : দর্জিকে কুপিয়ে হত্যা, কারফিউ জারি         ভারতে আটকে থাকা ২৫ নারী ও শিশু ফিরলেন দেশে         ভয়ঙ্কর নদী রিও টিনটো         স্ত্রীকে গলা কেটে হত্যার পর স্বামীর আত্মহত্যা         বিশ্বে করোনায় আক্রান্ত আরও ৭ লাখ, মৃত্যু ১৩২৬         আমার ভুলগুলো ক্ষমা করে দিন: প্রভা         করোনা সংক্রমণ রোধে ৬ নির্দেশনা         জাবিতে জাতীয় গণিত অলিম্পিয়াড পহেলা জুলাই         দেশে রপ্তানি আয়ে রেকর্ড         মুম্বাইয়ে ভবন ধসে নিহত ১৯         দাম নিয়ন্ত্রণে ভারত থেকে পেঁয়াজ আমদানির পরামর্শ         আবারও বাড়ছে বন্যার পানি         মাস্ক পরা বাধ্যতামূলক, অন্যথায় শাস্তি         সুনামগঞ্জে বন্যার্তদের মাঝে শিক্ষক কর্মচারী ঐক্যজোটের ত্রাণ বিতরণ         স্বেচ্ছাসেবক লীগ ঢাকা মহানগরের সব কমিটি বিলুপ্ত         বানারীপাড়ায় নির্মমতার কালের সাক্ষী হয়ে দাঁড়িয়ে আছে ‘সতীদাহ মঠ’         নিউজিল্যান্ডে ‘৬ মাঠে ৬ ম্যাচ’ খেলবে টাইগ্রেস ক্রিকেটাররা         ছাত্রদল নেতা সাইফকে জনসমক্ষে হাজির করার দাবি মির্জা ফখরুলের