শনিবার, ১৩ অগ্রহায়ণ ১৪২৮
২৭ নভেম্বর ২০২১ ঢাকা, বাংলাদেশ
যুক্ত থাকুন

আর্কাইভ
সর্বশেষ

শীতে হাতে-পায়ে ভীতিকর ঠাণ্ডা, বাঁচার উপায়

উইমেনআই২৪ ডেস্ক: আসলে রক্তপ্রবাহই আমাদের শরীরকে গরম রাখে। এবার শীতকালে ঠাণ্ডার কারণে হাত এবং পায়ের রক্তনালী সংকুচিত হয়। ফলে শরীরের এই অংশে রক্তপ্রবাহ অনেকটাই কমে যায়। এই কারণে শরীরের এই অংশে ঠাণ্ডার অনুভূতি বেশি থাকে।

শীতকাল বড় আমুদে ঋতু। ঘোরা, ফেরা, খাবার খাওয়ার স্বাধীনতা এই ঋতুর মতো অন্য কোনও সময়েই পাওয়া যায় না। তাই গ্রীষ্মপ্রধান দেশের বেশিরভাগ মানুষই শীতের অপেক্ষায় থাকেন। তবে আমার জন্য যা ভালো, অন্যের জন্যও যে তাই হবে, এমনটা নয়। অনেক মানুষ আছেন যাঁরা শীতকালে ভীষণ ভয়ে ভয়ে থাকেন। এমনই একদল মানুষ হলেন যাঁদের শীতে হাত-পা (Hand-Foot) বরফের মতো ঠাণ্ডা হয়ে যায়। এই সমস্যায় ভোগা মানুষ ঠাণ্ডার দিনে বেশ আতঙ্কেই থাকেন। কারণ হাত-পা ঠাণ্ডা হয়ে গেলে তাঁদের বেশ অস্বস্তি হয়। কারও কারও ব্যথার অনুভূতিও হয়। তাই এই মানুষগুলি সবসময় হাত-পা গরম করার কথা ভেবে থাকেন।

যে কারণে শীতে হাত-পা ঠাণ্ডা হয়ে যায়
আসলে রক্তপ্রবাহই আমাদের শরীরকে গরম রাখে। এবার শীতকালে ঠাণ্ডার কারণে হাত এবং পায়ের রক্তনালী সংকুচিত হয়। ফলে শরীরের এই অংশে রক্তপ্রবাহ অনেকটাই কমে যায়। এই কারণে শরীরের এই অংশে ঠাণ্ডার অনুভূতি বেশি থাকে। তবে সকলের এমনটা হয় না। কিছু কিছু মানুষ এই সমস্যায় বেশি ভোগেন। বিশেষত, বয়সকালে এই সমস্যা বেশি হয়। তবে ছোট বয়সেও এই জটিলতা আসতে পারে। আর সমস্যা থাকলে বিশেষ সাবধানতা অবলম্বন করতে হবে।

হাত-পা গরম রাখার উপায়
মোজা- গ্লাভস পরুন: লজ্জার কোনও বিষয়ই নেই। অন্যদের মতো সাহসিকতা দেখানোরও প্রয়োজন নেই। আপনার সমস্যা রয়েছে তাই আপনাকে গ্লাভস, মোজা পরতেই হবে। ভালো কাপড়ের গ্লাভস, মোজা পরুন। এই পোশাক আপনার হাত ও পা থেকে গরম বেরিয়ে যেতে দেব না।

তেল মাখুন: হাত-পায়ে সরষের তেল মাখতে পারেন। ভালো করে মালিশ করবেন। এরফলে হাতে-পায়ে রক্তপ্রবাহ বাড়বে। গরম অনুভূতি মিলবে। বিশেষত, শীতের রাতে তেল মাখতেই হবে।

ব্যায়াম করুন: শরীরকে গরম রাখার ক্ষেত্রে সবথেকে ভালো উপায় হল ব্যায়াম করা। দিনে নিজের মতো করে ব্য়ায়ামের সময় বের করুন। ৩০ মিনিট ব্যায়াম করতেই হবে। দেখবেন অবস্থা বদলেছে। আর ততটা ঠাণ্ডা লাগছে না। কারণ ব্যায়াম করলে সারা শরীরেই ব্লাড সার্কুলেশন বাড়ে।

হিটিং প্যাড ব্যবহার করুন: সমস্যা খুব বেশি হলে অবশ্যই হিটিং প্যাড (Hitting Pad) ব্যবহার করুন। হিটিং প্যাড দিয়ে হাত-পায়ে সেক দিন। তবে রোজ এমনটা না করলেও চলবে। যেদিন সমস্যা বেশি মনে হবে সেদিনই হিটিং প্যাড ব্যবহার করুন। দেখবেন আরাম মিলবে।

আয়রন যুক্ত ডায়েট খান: রক্তেরপ্রবাহ কম থাকার অন্যতম কারণ হল অ্যানিমিয়া (Anemia)। তাই রক্তরপ্রবাহ বাড়াতে আয়রন যুক্ত খাবার খান যেমন- শাক, সবজি, মাংস, মাছ ইত্যাদি।

পর্যাপ্ত পানি পান করুন: ঠাণ্ডায় তৃষ্ণা কম হওয়া স্বাভাবিক। কিন্ত তাই বলে পানি পান কমানো যাবে না। দিনে পর্যাপ্ত পরিমাণ পানে পান করতে হবে। তবেই শরীর থাকবে হাইড্রেটেড।

পরিশেষে বলি, এই উপায়গুলি ব্যবহার করার পরও যদি হাত-পায়ের তাপমাত্রা না বাড়ে তবে অবশ্যই চিকিৎসেকর পরামর্শ নিন। তিনিই আপনাকে সঠিক রাস্তা দেখাবেন। কারণ এই সাদামাটা সমস্যার নেপথ্যেও লুকিয়ে থাকতে পারে বড় কোনও জটিলতা। তবে চিন্তা করবেন না, সব ধরনের সমস্যারই সমাধান রয়েছে। শুধু সঠিক সময়ে চিকিৎসা হওয়ার অপেক্ষা। তাই আজই সতর্ক হন।

উইমেনআই২৪//এএসইউ//

Mujib Borsho

সর্বশেষ

শীর্ষ সংবাদ:
নতুন প্রজন্মের জন্য গবেষণা কাজে প্রণোদনা অব্যাহত থাকবে: বিদ্যুৎ প্রতিমন্ত্রী         ছোটবেলায় আমরাও অর্ধেক ভাড়ায় চলেছি : স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী         এবার সাহসী সামান্থা         মহাসড়কে টোল আদায়ে বিল পাস         বিশ্ব বাণিজ্য সংস্থার সম্মেলন হচ্ছে না         স্মার্টফোন ব্যবহারে চোখের ক্ষতি এড়াতে         টিকা দিয়ে বাসায় ফেরার পথে বউ-শাশুড়ির প্রাণহানি         মহামারীতে প্রবাসী আয়েই শক্ত অর্থনীতি: মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রী         ডব্লিউসিআইটি ২০২১ :তথ্যপ্রযুক্তির বিশ্ব আসরে ডিজিটাল বাংলাদেশ         করোনার নতুন ধরন 'ওমিক্রন' নিয়ে এত উদ্বেগ কেন?         বিশ্ববাজারে কমেছে স্বর্ণের দাম, কমতে পারে দেশেও         করোনায় আজও মৃত্যু কমেছে         প্রথমবারের মতো বিশ্বকাপে বাংলাদেশের মেয়েরা         গত ২৪ ঘণ্টায় ডেঙ্গু জ্বরে আক্রান্ত হয়ে হাসপাতালে আরও ৮৭ জন নতুন রোগী ভর্তি         নারী আন্দোলনের ইতিহাস         আগামী ২ ডিসেম্বর থেকে‘বেনাপোল এক্সপ্রেস’ ট্রেন চালু         পেছন থেকে কেউ নজর রাখলে সতর্ক করে দেবে ক্রোমবুক         চট্টগ্রামে আবারও ভূমিকম্প         আমাদের লক্ষ্য হচ্ছে রাষ্ট্রকে স্বপ্নের ঠিকানায় পৌঁছানো: তথ্য ও সম্প্রচার মন্ত্রী